১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
Advertisement

প্রচারের পথে ডাক্তার দিদি: বর্ধমান পূর্বের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী ডঃ শর্মিলা সরকার পূর্বস্থলীতে রোগীদের চিকিৎসা করলেন

নিজস্ব প্রতিনিধি : বর্ধমান পূর্ব আসনের তৃণমূল কংগ্রেসের লোকসভা প্রার্থী ডঃ শর্মিলা সরকার সোমবার পূর্বস্থলীর নিমদহে, একটি বিনামূল্যে চিকিৎসা শিবিরে রোগীদের চিকিৎসা করার জন্য তাঁর নির্বাচনী প্রচার থেকে সাময়িক বিরতি নিয়েছিলেন। তিনি শিবিরে জড়ো হওয়া বেশ কিছু রোগীকে পরীক্ষা করেন, যারা বিনামূল্যে

স্বাস্থ্য পরীক্ষা করার জন্য এসেছিলেন। গোটা বিষয়টি সকলের প্রশংসা কুড়িয়েছিল।

Advertisement

 

 

Advertisement

 

 

Advertisement

স্থানীয় বাসিন্দা সালাউদ্দিন শেখ, পূর্বস্থলীতে ক্যাম্প আয়োজনের জন্য বর্ধমান মেডিকেল কলেজের তৃণমূল ছাত্র পরিষদ শাখার প্রচেষ্টার প্রশংসা করেছেন। “এই প্রচণ্ড গরমে মেডিক্যাল কলেজে চিকিৎসার জন্য মানুষের পক্ষে দূর দূরান্তে যাওয়া সত্যিই কঠিন। আমরা কৃতজ্ঞ যে দলের নেতারা একটি স্বাস্থ্য শিবিরের আয়োজন করেছিলেন, যেখানে আমরা বিনামূল্যে ওষুধও পেয়েছি। আমি আমার ৭৩ বছর বয়সী মায়ের রক্তচাপ এবং সুগার পরীক্ষারও সুযোগ পেয়েছিলাম। ডাঃ সরকার একজন খুব সুন্দর মানুষ এবং রোগীদের সাথে দীর্ঘক্ষণ কথা বলেছেন,” তিনি বলেছিলেন।

 

Advertisement

 

 

Advertisement

ডাঃ শর্মিলা সরকার বলেন, একজন চিকিৎসক হিসেবে জনগণের পাশে দাঁড়ানো তাঁর প্রাথমিক দায়িত্ব। “আমি প্রথমে একজন ডাক্তার এবং তারপর একজন তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী। জনগণের পাশে দাঁড়ানো গুরুত্বপূর্ণ, কারণ স্বাস্থ্যসেবা তাঁদের মৌলিক অধিকার”, তিনি জানিয়েছেন।

 

Advertisement

 

 

Advertisement

 

সোমবার সকাল থেকে ক্যাম্পে উপস্থিত ছয় চিকিৎসক রোগীদের পরিষেবা দিতে ব্যস্ত থাকায়, ক্যাম্পের বাইরে এলাকাবাসীদের লাইন পড়ে যায়। শিবিরটি পাঁচটি বিভাগে বিভক্ত ছিল – প্রতিটিতে একজন বিশেষজ্ঞ সহ, একজন সাধারণ চিকিৎসক, স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ, অর্থোপেডিক এবং শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ছাড়াও, রক্তচাপ এবং সুগারের মতো নিয়মিত পরীক্ষা করার জন্য আরও একটি বিভাগ ছিল। স্বাস্থ্য পরীক্ষা ছাড়াও রোগীদের বিনামূল্যে ওষুধও দেওয়া হয়।

Advertisement

 

 

Advertisement

 

 

Advertisement

কিছু রোগী তাঁদের মানসিক স্বাস্থ্য সংক্রান্ত সমস্যা নিয়ে ডাঃ সরকারের সাথে পরামর্শ করেছেন। তিনি কাউন্সেলিং সেশনেও নিযুক্ত ছিলেন। অন্যান্য রোগী যারা মেডিকেল ক্যাম্পে পৌঁছেছিলেন, তাঁদেরও ডাক্তাররা চিকিৎসা করেছিলেন এবং বিনামূল্যে পরামর্শ ও ওষুধ দেওয়া হয়েছিল।

Advertisement